অন্ধ্র প্রদেশে তিতলির আঘাতে ৮ জনের প্রাণহানি

ভারতের অন্ধ্র প্রদেশে ঘূর্ণিঝড় ‘তিতলি’-এর আঘাতে অন্তত আটজনের প্রাণহানি হয়েছে। বুধবার সন্ধ্যায় ভারতের বিভিন্ন গণমাধ্যম এ কথা জানায়।

অন্ধ্র প্রদেশের ভিজানগরগ্রাম ডিস্ট্রিক্ট কালেক্টর হরি জওহরলালের বরাত দিয়ে বিকেল পাঁচটার দিকে টাইমস অব ইন্ডিয়া জানায়, তিতলির আঘাতে তিন জেলে নিখোঁজ রয়েছেন। এক হাজার একর কৃষি জমির ফসল ও তিন হাজার একর উদ্ভিদের বাগান ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

এর আগে সকালে অন্ধ্র প্রদেশ ও ওডিশা রাজ্যের সমুদ্র উপকূলে আছড়ে পড়ে। তিতলির প্রভাবে ওডিশার গোপালপুর-বেরহামপুর সড়ক বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে। ভেঙে পড়েছে বহু বাড়িঘর, গাছপালা, বিদ্যুতের খুঁটিও। সমুদ্র হয়েছে উত্তাল। তিতলির প্রভাবে পশ্চিমবঙ্গে শুরু হয় বৃষ্টি।

সকালে অন্ধ্র প্রদেশের শ্রীকাকুলাম ও ওডিশার গোপালপুরে তিতলি আছড়ে পড়ার সময় ঘণ্টায় এর গতিবেগ ছিল ১২৬ কিলোমিটার। এরই মধ্যে ওডিশা সরকার উপকূলবর্তী এলাকার তিন লাখ মানুষকে নিরাপদ জায়গায় সরিয়ে নিয়েছে। ওডিশা সরকার আজ বৃহস্পতিবার ও কাল শুক্রবার দুই দিনের জন্য স্থানীয় সব স্কুল-কলেজ বন্ধ ঘোষণা করেছে।

এই ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে বুধবার দুপুর থেকে পশ্চিমবঙ্গের উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা, হাওড়া, হুগলি, পূর্ব ও পশ্চিম মেদিনীপুর এবং ঝাড়গ্রামের বিভিন্ন এলাকায় বৃষ্টি শুরু হয়েছে। কলকাতা শহর ও পার্শ্ববর্তী এলাকায় ঝোড়ো বাতাস রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *