ইজরায়েলের প্রধানমন্ত্রীকে আলিঙ্গন মোদির, কংগ্রেসের কটাক্ষ

ইজরায়েলের প্রধানমন্ত্রীকে ভারতে স্বাগত জানাতে গিয়ে প্রোটোকলের তোয়াক্কা করলেন না প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। বেঞ্জামিন নেতানিয়াহু নয়াদিল্লির মাটিতে পা রাখতেই সটান তাঁকে জড়িয়ে ধরেন মোদি। স্বাগত জানান নেতানিয়াহুর স্ত্রী সারাকেও। ১৫ বছরে এই প্রথম কোনও ইজরায়েলি প্রধানমন্ত্রী ভারত সফরে এলেন। এর আগে ২০০৩-এ শেষবার দেশে এসেছিলেন এরিয়েল শ্যারন।

আরও একটি কারণে সাউথ ব্লকের কাছে ইজরায়েলের প্রধানমন্ত্রীর এবারের ভারত সফর যথেষ্ট গুরুত্বপূর্ণ। বেঞ্জামিনের সঙ্গে এসেছেন অস্ত্র ব্যবসায়ীদের একটি বড় অংশই। আজ পর্যন্ত ভারতে একসঙ্গে এত বড় মাপের অস্ত্র ব্যবসায়ীরা পা রাখেননি। ছ’দিনের ভারত সফরে আসার আগে টুইট করে নেতানিয়াহু জানান, তিনি বেশ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ চুক্তি স্বাক্ষর করতে চলেছেন মোদির সঙ্গে। এদিন নেতানিয়াহু দিল্লিতে পা রাখতেই মোদিও আশা প্রকাশ করেছেন, ইজরায়েলের সঙ্গে প্রতিরক্ষা-সহ একাধিক গুরুত্বপূর্ণ ক্ষেত্রে ভারতের দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক মজবুত হবে। এই কথা টুইট করেন মোদি।

দুই রাষ্ট্রপ্রধান রবিবার প্রথমেই যান তিন মূর্তি মনুমেন্টে। সেখানে ‘ব্যাটেল অফ হায়্ফা’য় যে তিন ভারতীয় রেজিমেন্ট অসম সাহসিকতা দেখিয়েছিল, তার সদস্যদের স্মৃতিতে মাল্যদান করেন দু’জনে। আজ থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে তিন মূর্তি মার্গের নাম হল তিন মূর্তি হায়্ফা মার্গ। আজ রাতে মোদির আমন্ত্রণে নৈশভোজে যোগ দেবেন নেতানিয়াহু। ইতিমধ্যেই তিনি মোদির সঙ্গে কাটানো বেশ কয়েকটি আন্তরিক মুহূর্তের ছবি শেয়ার করেছেন টুইটারে। তবে ইজরায়েলের প্রধানমন্ত্রীর এই সফর নিয়ে মোদিকে কটাক্ষ করতে ছাড়েনি কংগ্রেস। কূটনীতি বা ‘ডিপ্লোমেসি’ নয়, রাষ্ট্রপ্রধানদের সঙ্গে মোদি ‘হাগ-প্লোমেসি’ করছেন বলে একটি ভিডিও পোস্ট করে মোদিকে আক্রমণ করেছে কংগ্রেস। কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়র অভিযোগ, মণিশঙ্কর আইয়ারের আক্রমণের পর ফের শালীনতা লঙ্ঘন করল কংগ্রেস।

Leave a Reply