এই গরমে শরীরের জন্য শশা কতটা উপকারী জানেন?

বাইরে চাঁদিফাটা রোদ, নাজেহাল করে দেওয়া গরম, ঘরের মধ্যেও গরমে টেকা যাচ্ছে না। বারবার স্নান করেও কিছুতেই গরম কমছে না। রোদে বেরোলেই শরীরের খোলা অংশ পুড়ে কালো হয়ে যাচ্ছে। আর না বেরোলেও ডিহাইড্রেশন এবং আরও অন্যান্য উপসর্গ তো লেগে আছেই।

রোজ খাবারের সঙ্গে শশা স্যালাড নিশ্চয়ই খাচ্ছেন? কিন্তু জানেন কি, রোজকার খাবারের তালিকায় থাকা শশাই হয়ে উঠতে পারে রোদ গরমের অসুখের হাত থেকে মুক্তি দেওয়া একমাত্র ম্যাজিক খাবার।

বিশেষজ্ঞরা জানাচ্ছেন, শশায় রয়েছে ৯৫ শতাংশ জল। যা আমাদের শরীরে জলের ভারসাম্য বজায় রাখতে সাহায্য করে। শরীরকে হাইড্রেটেড রাখে এবং শরীর থেকে সমস্ত টক্সিন দূর করতে সাহায্য করে। শশায় প্রচুর পরিমাণে ফাইবার, পটাশিয়াম এবং ম্যাগনেশিয়াম রয়েছে। যা রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণ করতে সাহায্য করে। ত্বকের জন্যও দারুণ উপকারী শশা। প্রত্যেকদিন ত্বকে শশার রস লাগালে শুষ্ক ত্বকের সমস্যা দূর হয়ে ত্বকে ঔজ্জ্বল্য নিয়ে আসে।

আপনার ত্বক যদি রোদে পুড়ে কালো হয়ে গিয়ে থাকে, তাহলে শশার রসের সঙ্গে দই এবং লেবুর রস মিশিয়ে সেই মিশ্রণ ত্বকে লাগিয়ে ১০ থেকে ১৫ মিনিট পর ধুয়ে ফেলুন। এই মিশ্রণ রোজ ব্যবহার করলে সানবার্ন মুহূর্তে ভ্যানিশ হয়ে যাবে।
শশার বীজও মোটেই ফেলে দেওয়ার নয়। এতে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন ই এবং পটাশিয়াম। যা রিঙ্কল মুক্ত করতে সাহায্য করে, ত্বকে বয়সের ছাপ পড়তে দেয় না।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *