গিনেস বুকের স্বীকৃতি পেলেন হালিম

এবার মাথায় ফুটবল নিয়ে সাইকেল চালিয়ে সবচেয়ে বেশি দূরত্ব অতিক্রম করার রেকর্ড গড়েছেন ফুটবল জাদুকর আবদুল হালিম। গত বৃহস্পতিবার তাকে এ স্বীকৃতি দিয়েছে গিনেস বুক কর্তৃপক্ষ।

এই নতুন রেকর্ডের জন্য আবদুল হালিম গত ৮ জুন দুপুর ১১টা ৫৩ মিনিটে শেখ রাসেল রোলার স্কেটিং কমপ্লেক্সে বল মাথায় নিয়ে সাইকেল চালানো শুরু করেন। কিন্তু বাতাসের প্রচণ্ড ঝাপটায় দুপুর ১টা ১২ মিনিটে তার মাথা থেকে বল পড়ে যায়। ততক্ষণে তিনি ১৩.৭৪ কিলোমিটার অতিক্রম করে ফেলেন, যা নতুন রেকর্ড।

জানা গেছে, নতুন এই রেকর্ড গড়ার জন্য ২০১৬ সালে গিনেস বুক কর্তৃপক্ষের কাছে আবেদন করেছিলেন তিনি। কর্তৃপক্ষ তাকে কমপক্ষে ৫ কিলোমিটার পথ অতিক্রম করার সীমা নির্ধারণ করে দেয়। তাদের বেঁধে দেওয়া সীমার চেয়ে বেশি পথ অতিক্রম করেন হালিম। তিনি ১ ঘণ্টা ১৯ মিনিটে ১৩.৭৪ কিলোমিটার পথ পাড়ি দেন এবং এটি ভিডিওতে ধারণ করা হয়। এরপর আনুষ্ঠানিকভাবে পুরো ভিডিও, স্থিরচিত্রসহ অন্যান্য প্রমাণাদি গিনেস বুক কর্তৃপক্ষের কাছে জমা দেন তিনি। সেসব বিচার-বিশ্লেষণ করে গত বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ সময় বিকেল ৫টায় আবদুল হালিমকে নতুন রেকর্ডের স্বীকৃতি দেয় গিনেস বুক কর্তৃপক্ষ।

এর আগেও ফুটবল নিয়ে নৈপুণ্য দেখিয়ে আরও দুইবার বিশ্বসেরার স্বীকৃতি পান মাগুরার শালিখা উপজেলার ছয়ঘরিয়া গ্রামের এই ফুটবলপাগল হালিম। তিনি ২০১১ সালে প্রথম বিশ্বরেকর্ড গড়ে গিনেস বুকে নাম লেখান। সেটি ছিল ২ ঘণ্টা ৪৯ মিনিট নিরবচ্ছিন্নভাবে মাথায় ফুটবল নিয়ে ১৫.২০ কিলোমিটার পথ হাঁটা। এরপর ২০১৫ সালে দ্বিতীয়বারের মতো তিনি স্বীকৃতি পান ২৭.৬৬ মিনিট ফুটবল নিয়ে ১০০ মিটার রোলার স্কেটিংয়ের জন্য। এই দুটি রেকর্ডের কারণে ফুটবল জাদুকর হিসেবে সারা বিশ্বে পরিচিতিও পান তিনি।

ফুটবলপাগল হালিম বলেন, ‘এই আনন্দ বিশ্বজয়ের। এর প্রকাশ কীভাবে করব জানি না। আমার জন্য এটি একটি চ্যালেঞ্জ ছিল। চ্যালেঞ্জ ছিল নিজের সাথেই। আমি চেয়েছি এটি করতে এবং তার জন্য নিয়মিত পরিশ্রমের ফসল হিসেবেই পাওয়া সম্ভব হয়েছে। ‘

দরিদ্র কৃষক পরিবারের সস্তান প্রথম দুটি বিশ্বরেকর্ড অর্জনের মাধ্যমে বিশ্ব স্বীকৃতি পেলেও দেশে আনুষ্ঠানিকভাবে তাকে কোনো স্বীকৃতি না দেওয়ায় তিনি ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Shares