ঘুমের সমস্যা দূর করবে এই পাঁচটি ফল!

রোজ রোজ এই ঘুমের ওষুধ থেকে কিন্তু শরীরের ভেতরে অজান্তেই বাড়ছে নানা সমস্যা। তাই ঘুম ভালো হবার জন্য রোজ ঘুমের ওষুধ খাওয়া কিন্তু কাজের কথা নয়। তাই চেষ্টা করুন প্রাকৃতিক ভাবে যাতে ভেতর থেকে কাজ হবে আবার শরীরের কোন ক্ষতিও হবে না। এমনই ৫টি ফল যা এই অনিদ্রা সমস্যা কমাতে বেশ সাহায্য করে। এই ফলগুলো রোজ খেলে, তখন আর রাতে ঘুমের জন্য ঘুমের ওষুধ খেতে হবে না। এমনিই ঘুম আসবে। চলুন জেনে নেওয়া যাক সে সম্পর্কে-

১) কলা-
কলা শুধু যে শরীরে ক্যালসিয়ামের চাহিদা পূরণ করে তাই নয়,অনিদ্রা সমস্যা কমাতেও বেশ উপকারী কলা। এতে আছে প্রচুর পটাশিয়াম,ম্যাগনেসিয়াম। এই দুটি মিনারেল শরীরকে রিলাক্স করতে সাহায্য করে। প্রতিটা পেশীকে রিলাক্স করে। তার ফলে ঘুমোতে সাহায্য করে। শরীরে ম্যাগনেসিয়ামের অভাব ঘটলে ঘুমের ক্ষেত্রে সমস্যা হয়। কলাতে থাকা ভরপুর ম্যাগনেসিয়াম ঘুমোতে সাহায্য করে।

২) আনারস-
আনারস যেমনই সুন্দর স্বাদ, তেমনই সুন্দর গুণ। কারণ এটা আপনাকে সাহায্য করবে ভালো ভাবে ঘুমোতে, অনিদ্রার মত বিরক্তিকর সমস্যা থেকে বেড়িয়ে আসতে। কারণ এটা রক্তে মেলাটোনিনের পরিমাণ বাড়াতে সাহায্য করে, যেটা ভালো ভাবে ঘুমের একমাত্র ওষুধ।

৩) আপেল-
আপেল যেমন সুস্বাদু, তেমনই আছে এর গুণ। রোজ একটা আপেল শরীরের অন্যান্য সমস্যার মত, ঘুমের সমস্যার ক্ষেত্রেও খুব ভালো কাজ করে। কারণ এতে থাকা বিভিন্ন রকম নিউট্রিয়েন্ট ও প্রচুর অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট যা শরীরকে ভেতর থেকে একদম ফ্রেশ ও ফিট রাখে,যেটা ঘুম ভালো হতে সাহায্য করে।

৪) কাঠবাদাম-
বাদাম আপনাকে অন্যান্য উপকারিতাও দেবে, সঙ্গে রাতে ভালো ভাবে ঘুমোতেও সাহায্য করবে। কারণ এতে আছে প্রচুর ম্যাগনেসিয়াম,যেটা পেশীকে রিলাক্স করে এবং ভালো ভাবে ঘুমোতে সাহায্য করে। এছাড়াও এতে থাকা অন্যান্য প্রোটিন যা শরীরকে রিলাক্স করে। তাই রাতে খাবারের সাথে রোজ একটু কাঠবাদাম খাওয়ার অভ্যাস করুন।

৫) চেরি-
চেরি এমনি একটা ফল, যেটা ঘুমোতে সাহায্য করে। বিভিন্ন স্টাডি থেকে দেখা গেছে, চেরিতে আছে প্রচুর মেলাটোনিন। এটা একটা হরমোন যেটা ঘুম গাঢ় হতে সাহায্য করে। সকালে এক গ্লাস চেরির রস খেলে ভালো বা রাতেও খাওয়া যেতে পারে। রাতে ঘুম নিয়ে আর চিন্তার কোন কারণ থাকবে না। যদি রস না খেতে পারেন , তাহলে কাঁচা চেরি চিবিয়েও খেতে পারেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *