‘নির্বাচন ভালো, সুষ্ঠু, গ্রহণযোগ্য হবে’

রংপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে সেনাবাহিনী মোতায়েনের কোন পরিকল্পনা নেই উল্লেখ করে প্রধান নির্বাচন কমিশনার মোঃ নুরুল হুদা বলেছেন, নির্বাচনে বিঘ্ন সৃষ্টি করতে পারে এমন কোন সুনির্দিষ্ট তথ্য ছাড়া কাউকে হয়রানী করার জন্য কোথাও কোন অভিযান করা হচ্ছে না। রংপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচন ভালো হবে। সুষ্ঠু হবে। গ্রহনযোগ্য হবে বলে তিনি মন্তব্য করেন।
তিনি বৃহস্পতিবার দুপুরে রংপুর বিভাগীয় কমিশনারের সম্মেলন কক্ষে নির্বাচন নিয়ে আইনশৃংখলাবাহিনী ও সংশ্লিষ্টদের সাথে মতিবিনয়ম সভা শেষে তিনি সাংবাদিকদের সাথে একথা বলেন।
সিইসি বলেন, এই নির্বাচন নিয়ে যেমন এলাকার মানুষের মধ্যে উৎসব বিরাজ করছে। ঠিক তেমনিভাবে নির্বাচন সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা কর্মচারীরাও নির্বাচনকে সুষ্ঠু ও গ্রহনযোগ্য করার জন্য উৎসবের আমেজে কাজ করছেন। সবার জন্য, সব প্রার্থীর জন্য সমান সুযোগ নিশ্চিত করা হবে।
সাংবাদিকের উদ্দেশ্যে সিইসি বলেন, আশা করি আপনারা এমন কোন শব্দ লিখবেন না, বা প্রচার করবেন যা সুষ্ঠু নির্বাচনের পথে বাঁধা হয়ে দাড়ায়। সুষ্ঠু নির্বাচনের জন্য যা যা দরকার তা তা আপনারা করবেন। তবে সমালোচনা থাকলে তা সেভাবেই করবেন।
সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, আগামীকাল থেকে মাঠে ৩৩ জন নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট কাজ করবে।
নির্বাচন নিয়ে বিএনপি প্রার্থীর অভিযোগের বিষয়ে সিইসি বলেন, তাদের অভিযোগ সঠিক নয়। আমরা সুষ্ঠু নির্বাচন করবো। ৪ স্তরের নিরাপত্তা থাকবে এই ভোটে।
বিএনপি নেতাকর্মীদের বাড়িতে পুলিশের অভিযান প্রসঙ্গে সিইসি বলেন, কারো কাছে যদি অস্ত্র থাকে। নির্বাচন বিঘ্নিত হয় এমন কোন বিষয় থাকে, তাহলেই কেবল সুনিদিষ্ট তথ্যের ভিত্তিতে আমরা অভিযান পরিচালনা করছি। কাউকে বা রাজনৈতিক কোন দলের নেতাকর্মীর বাড়িতে আমরা হয়রানী করার জন্য কোন অভিযান হবে না।
প্রসঙ্গত আগামী ২১ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হবে ভোট। এখানে মেয়র পদে ৭ জন, সংরক্ষিত কাউন্সিলর পদে ৬৫ জন এবং সাধারণ কাউন্সিলর পদে ২১১ জন প্রার্থী রয়েছেন।
রংপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচন সুষ্ঠু সংক্রান্ত হাই প্রোফাইল কমিটির প্রধান রংপুর বিভাগীয় কমিশনার কাজী হাসান আহমেদের সভাপতিতে বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন ইসি সচিব হেলালুদ্দীন আহমেদ, রংপুর রেঞ্জ ডিআইজি খন্দকার গোলাম ফারুক, পুলিশ সুপার মিজানুর রহমান, বিজিবি-৭ ব্যাটালিয়নের সিওসি লেফটেন্যান্ট কর্নেল মাহফুজুর রহমান, র্যা ব-১৩ কোম্পানী কমান্ডার নজরুল ইসলাম রিটানিং কর্মকর্তা সুভাষচন্দ্র সরকারসহ নির্বাচন সংশ্লিষ্টরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Shares