মেসির জাদুতে, কোপা দেল রে’র শেষ আটে বার্সা

আরও একবার মেসির জাদু। নিজে করলেন জোড়া গোল, সতীর্থের গোলে রাখলেন অবদান। এভাবেই ৫-০ তে সেল্তা ভিগোকে উড়িয়ে দিয়ে কোপা দেল রে’র শেষ আটে উঠে গেলো বার্সেলোনা।

বৃহস্পতিবার কাম্প নউয়ে শেষ ষোলোর ফিরতি লেগে ৫-০ গোলে জিতেছে এরনেস্তো ভালভেরদের দল। মেসি ছাড়া অন্য তিনটি গোল করেছেন জর্দি আলবা, লুইস সুয়ারেস ও ইভান রাকিতিচ।

দুই লেগ মিলিয়ে ৬-১ অগ্রগামিতায় পরের রাউন্ডে উঠলো তারা। সেল্তার মাঠে প্রথম পর্বের ম্যাচটি ১-১ ড্র হয়েছিল।

সপ্তাহখানেক আগেই এই সেল্তার বিপক্ষে অসংখ্য সুযোগ নষ্ট হয়েছিলো বার্সার। জয় হাতছাড়া হয়েছিল বার্সেলোনার মেসি-সুয়ারেসদের।

এবার সেই সুযোগটাই দেয়নি কেউ। শুরু থেকেই বিধ্বংসী হয়ে ওঠা দলটি বিরতির আগেই চারবার বল জালে পাঠিয়ে জয়টা একরকম নিশ্চিত করে ফেলে।

গোল উৎসবের শুরুটা করেন মেসি। ত্রয়োদশ মিনিটে বাঁ দিক থেকে আলবার বাড়ানো বল হাফ ভলিতে জালে পাঠান আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড। গোলরক্ষক সের্হিও আলভারেস বাঁয়ে ঝাঁপিয়ে বলে হাত লাগালেও রুখতে পারেননি।

দুই মিনিট পর বাঁ দিকে আলবাকে বল বাড়িয়ে ডি-বক্সে ঢুকে সতীর্থের ফিরতি পাস পেয়ে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন মেসি।

২৮তম মিনিটে আবারও মেসি-আলবা জুটিতে গোলের দেখা মেলে। তবে এবারের গোলদাতা স্প্যানিশ ডিফেন্ডার। অনেক দূর থেকে সতীর্থের দারুণ ক্রস ডি-বক্সে ফাঁকায় পেয়ে কোনাকুনি শটে গোলরক্ষককে পরাস্ত করেন তিনি।

এর তিন মিনিট পরেই প্রতিপক্ষের হাস্যকর ভুলের সুযোগে ব্যবধান আরও বাড়ান সুয়ারেস। ডি-বক্সের ঠিক বাইরে থেকে ডেনমার্কের ফরোয়ার্ড সিস্তো গোলরক্ষককে ব্যকপাস দিতে গেলে বল আরেক জনের পায়ে লেগে চলে যায় উরুগুয়ের স্ট্রাইকার সুয়ারেসের কাছে।

স্পেনের দ্বিতীয় জনপ্রিয় এই টুর্নামেন্টের শেষ আটে আগেই উঠে গেছে রিয়াল মাদ্রিদ। আতলেতিকো মাদ্রিদ, ভ্যালেন্সিয়া, সেভিয়া, আলাভেস, এস্পানিওল ও লেগানেসও জাযগা করে নিয়েছে কোয়ার্টার-ফাইনালে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *