লেবু দিয়ে এই কাজগুলিও করা যায়, জানতেন!

রান্নাঘরে শুধু রান্নাই নয়, আরও হাজার রকমের কাজ থাকে! যাঁরা নিয়মিত রান্নাঘরের দায়িত্ব সামলান একমাত্র তাঁরাই জানেন রান্না করা ছাড়াও আরও কত রকমের টুকুটাকি কাজ থাকে বাড়ির ওই এক চিলতে জায়গায়। যেমন, রান্নাঘর নিয়মিত পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন রাখাটাও একটা অত্যন্ত জরুরি কাজ। কারণ, রান্নাঘর অপরিচ্ছন্ন থাকলে তার থেকে রোগ-জীবানু ছড়াতে পারে খাবার-দাবারেও।

রান্নাঘর পরিষ্কার রাখতে বাজার চলতি নানা রকম সামগ্রী আমরা ব্যবহার করে থাকি। কিন্তু এ কথা হয়তো আমরা অনেকেই জানি না যে, প্রায় সব রান্নাঘরেই থাকে এমন একটি জিনিস যা রান্নাঘর পরিচ্ছন্ন রাখতে অত্যন্ত কার্যকর! বুঝতে পারছেন না? উত্তরটা হল পাতিলেবু। আসুন রান্নাঘর পরিচ্ছন্ন রাখতে পাতিলেবুর কয়েকটি আশ্চর্য ব্যবহার সম্পর্কে জেনে নেওয়া যাক…

১) বাসনপত্র চকচকে রাখতে পাতিলেবু অপরিহার্য। বিশেষ করে তামা বা রূপোর বাসন চকচকে করতে পাতিলেবু অত্যন্ত কার্যকর! বাসনে সারা রাত লেবুর রস মাখিয়ে রাখে দিন। পরদিন সকালে ধুয়ে ফেলুন। দেখবেন বাসনপত্র নতুনের মতো চকচক করছে!

২) শাক-সবজি কাটার পর কাটার বোর্ড বা চপিং বোর্ড সব সময় পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন রাখাটা খুব জরুরি। চপিং বোর্ড বা কাটিং বোর্ডের উপরে পাতিলেবুর রস ছড়িয়ে একটা কাপড় দিয়ে কিছু ক্ষণ ঘষে বোর্ডে লেগে থাকা দাগ যতটা সম্ভব তুলে ফেলুন। ১০ মিনিট পর জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। ব্যস, পেয়ে যান জীবানু মুক্ত চপিং বোর্ড।

৩) চাল সিদ্ধ হওয়ার আগে ফুটন্ত জলে ১ চামচ পাতিলেবুর রস মিশিয়ে দিন। এতে ভাত হবে ঝরঝরে।

৪) ফ্রিজের দুর্গন্ধ দূর করতে কয়েক টুকরো পাতিলেবু ফ্রিজের ভিতরে রেখে দিন। দুর্গন্ধ দূর হবে সহজেই।

৫) আদা বা রসুন কাটার পর হাতে দুর্গন্ধ হয়। এই গন্ধ সহজে যেতে চায় না। তবে এই দুর্গন্ধ সহজেই কাটাতে পারে পাতিলেবু। ১ কাপ জলে একটা গোটা পাতিলেবুর রস মিশিয়ে নিয়ে সেই জল দিয়ে হাত ধুয়ে ফেলুন। ফল পাবেন হাতেনাতে।

৬) মাইক্রোওয়েভের ভিতরের চটচটে ভাব কাটাতে অত্যন্ত কার্যকর! ২ কাপ জলে ২-৩ চামচ পাতিলেবুর রস মেশিয়ে একটি পাত্রে করে মাইক্রোওয়েভের ভিতরে রেখে ৫ মিনিটের জন্য মাইক্রোওয়েভ চালিয়ে দিন। ৫ মিনিট পর পাত্রটি বের করে নিয়ে মাইক্রোওয়েভের ভিতরের দেওয়াল একটা পরিষ্কার কাপড় দিয়ে মুছে ফেলুন। দেখবেন মাইক্রোওয়েভের ভিতরের চটচটে ভাব আর নেই!