৯৬ মিনিটের গোল হতাশ করল মরিনহোকে

তিনটি আঙুল তুলে ধরে বারবার দেখালেন। ‘তিন’, ‘তিন’! দুই দফায় সাড়ে ৫ বছরে চেলসিকে তিনটি প্রিমিয়ার লিগ জিতিয়েছেন। চেলসির দর্শকদের সেটা আবারও মনে করিয়ে দিলেন হোসে মরিনহো। মনে করিয়ে দেওয়ার দরকার হতো না। ৯৬ মিনিট পর্যন্ত খেলার যে অবস্থা, তাতে স্টামফোর্ড ব্রিজ নিশ্চুপ থেকেই মরিনহোর দম্ভ মেনে নিত। কিন্তু বার্কলে যে সেটা করতে দিলেন না! ৯৬ মিনিটে জটলা থেকে গোল করে মরিনহোকে জয় নিয়ে ম্যানচেস্টার ফিরতে দিলেন না এই মিডফিল্ডার। অনেক আলোচনার চেলসি-ইউনাইটেড ম্যাচ শেষ হলো ২-২ সমতায়।

২০১৬ সালে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের কোচ হয়েছেন মরিনহো। আজকের আগে স্টামফোর্ড ব্রিজে গেছেন তিনবার। নিজের পুরোনো দলের বিপক্ষে জয়ের দেখা তো পানইনি, চেলসির জালে নেই কোনো গোলও! চেলসির সমর্থকদের কাছ থেকে কথাও শুনতে হয়েছে, ‘তুমি আর বিশেষ কেউ নও!’ এই চেলসিতে এসেই নিজেকে ‘স্পেশাল ওয়ান’ বলা একজনকে এভাবে অপমান! আজ সবই সুদে-আসলে বুঝে নেবেন বলে মনে হয়েছিল, যখন প্রথমার্ধে গোল খাওয়ার পরও ৯০ মিনিটের খেলা ২-১ ব্যবধানে শেষ হয়েছিল।

কিন্তু ৯৬ মিনিটে পেদ্রোর ক্রস এসে পড়ল ডি বক্সে। সেখান থেকে দুর্দান্ত এক হেড ডেভিড লুইজের। কিন্তু সে হেড গিয়ে লাগল পোস্টে। ফিরতি বল পড়ল রুডিগারের সামনে। ম্যাচে চেলসির প্রথম গোলদাতা এবার আর ডে হেয়াকে পরাস্ত করতে পারলেন না। তাঁর হেড ঠেকিয়ে দিলেন এর আগেও বারবার চেলসিকে হতাশ করা ডে হেয়া। অবশেষে বল পেলেন রস বার্কলে। এত কাছ থেকে গোলার মতো শট না নিলেও চলত, কিন্তু বার্কলে ঝুঁকি নিলেন না। যোগ করা সময়ের শেষ মিনিটে ম্যাচে সমতা এল।

ম্যানচেস্টার ছাড়ার চিন্তায় আছেন অ্যান্থনি মার্শিয়াল। এক সময়ের সবচেয়ে দামি টিনএজার ইউনাইটেডে প্রথম মৌসুমের পর থেকেই নিজেকে হারিয়ে ফেলেছেন। আজ অবশ্য যেমন খেলেছেন তাতে দল ছাড়ার চিন্তাটা কদিনের জন্য বাক্সবন্দী করতে পারেন। ১৮ মিনিটের ব্যবধানে দুইবার বুঝিয়ে দিয়েছেন কেন তাঁর জন্য ২০১৫ সালে ৫০ মিলিয়ন ইউরো খরচ করেছিল ইউনাইটেড। ৫৫ মিনিটে চেলসি রক্ষণের ভুলে পাওয়া এক বল দারুণভাবে নিয়ন্ত্রণ করে প্রথমে দলকে ম্যাচে ফিরিয়েছেন। আর ৭৩ মিনিটে আরেক হারিয়ে যাওয়া টিনএজ তারকা মার্কাস রাশফোর্ডের দারুণ এক পাসকে আরও দারুণ এক শটে পূর্ণতা দিয়েছেন মার্শিয়াল।

এর আগে প্রথমার্ধে উইলিয়ানের ক্রসে ডি-বক্সের ভেতর ইউনাইটেডের অগোছালো রক্ষণের সুবিধা নিয়ে ২১ মিনিটে চেলসিকে এগিয়ে দিয়েছিলেন রুডিগার। তখনো অবশ্য বোঝা যায়নি, দলের দ্বিতীয় গোলেও এ রকম আরও একটি হেড তাঁকে করতে হবে! এ ড্রয়ে লিগে এখনো অপরাজিত চেলসি। ৯ ম্যাচে ২১ পয়েন্ট তাদের।

Leave a Reply