রাজনীতি

শোভন-রাব্বানীর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ায় আমরা খুশি : ফখরুল

Advertisements

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, দেশে যে দুর্নীতি ব্যাপক হারে চলছে, ছাত্রলীগের সভাপতি-সম্পাদককে বাদ দেয়ায় সেটি প্রমাণিত হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ায় আমরা খুশি হয়েছি।

রবিবার বিকালে গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের রাজনৈতিক কার্যালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি একথা বলেন।
মির্জা ফখরুল বলেন, দেশে যে কী হারে দুর্নীতি চলছে, এতে সেটাই প্রমাণিত হয়েছে। শুধু তো একটা প্রকাশ হয়েছে। যেটির কারণে একটা সংগঠনের সভাপতি-সাধারণ সম্পাদককে বহিষ্কার করতে হয়েছে। এটা তো সারাদেশেই চলছে। এটিই প্রমাণ করে যে দুর্নীতি কোথায় গিয়ে পৌঁছেছে।

ফখরুল বলেন, ‘প্রত্যেকটি সংগঠনের নিজস্ব গঠনতন্ত্র আছে। ছাত্রলীগের গঠনতন্ত্র সম্পর্কে যতটুকু জানি, তাদের সংগঠনের নেত্রী হলেন আওয়ামী লীগের সভানেত্রী শেখ হাসিনা। তিনিই সাংগঠনিক অভিভাবক। সুতরাং এখানে বহিষ্কারের কী বিধান আছে সেটা আমার জানা নেই। তবে সাংগঠনিক নেত্রী হিসেবে তিনি ব্যবস্থা নিতে পারেন।’

তিনি পদত্যাগ করতে বলেছেন, সভাপতি-সাধারণ সম্পাদক পদত্যাগ করেছেন। এখানে জটিলতার কিছু নেই।’