জাতীয় শিক্ষা ও শিক্ষাঙ্গন

বছরের প্রথম দিনেই শিক্ষার্থীরা পাবে ৩৫ কোটি বই

Advertisements

নতুন বইয়ের সোঁদা গন্ধে মাতোয়ারা হতে অধীর অপেক্ষায় শিক্ষার্থীরা। তাই নতুন বছরের প্রথম দিনেই দেশের ৪ কোটি ২৬ লাখ ১৯ হাজার ৮৬৫ জন শিক্ষার্থীর মাঝে ৩৫ কোটি ৩১ লাখ ৪৪ হাজার ৫৫৪টি নতুন বই বিতরণ করা হবে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আনুষ্ঠানিকভাবে আজ মঙ্গলবার বই উৎসবের উদ্বোধন করবেন। বছরের প্রথম দিনে ১ জানুয়ারী সারাদেশের শিক্ষার্থীদের হাতে পৌঁছে দেয়া হবে নতুন বই। প্রতিবার আজিমপুর গার্লস স্কুল এন্ড কলেজে মাধ্যমিক পর্যায়ের বই উৎসব অনুষ্ঠিত হলেও এবার মাধ্যমিক পর্যায়ের বই উৎসব হবে সাভারের অধরচন্দ্র সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ে।

গত বছরের মতো এ বছরও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় খেলার মাঠে উৎসব অনুষ্ঠিত হবে। এছাড়া শিক্ষার্থীদের হাতে নতুন বই তুলে দিতে পৃথকভাবে উৎসব পালন করা হবে দেশের প্রতিটি জেলায়।

২০২০ শিক্ষাবর্ষের জন্য প্রাক-প্রাথমিক থেকে দশম শ্রেণি পর্যন্ত ৪ কোটি ২৬ লাখ ১৯ হাজার ৮৬৫ জন শিক্ষার্থীর জন্য ৩৫ কোটি ৩১ লাখ ৪৪ হাজার ৫৫৪টি বই ছাপানো হয়েছে। এর মধ্যে প্রাথমিক স্তরের শিক্ষার্থীদের জন্য ১০ কোটি ৫৪ লাখ ২ হাজার ৩৭৫টি বই এবং মাধ্যমিক স্তরের শিক্ষার্থীদের জন্য ২৪ কোটি ৭৭ লাখ ৪২ হাজার ১৭৯টি বই বিনামূল্যে বিতরণ করা হবে।

প্রতি বছরের মতো এবারো প্রাথমিক স্তরের ২ কোটি ২ লাখ ৮৪ হাজার ৫১ জন শিক্ষার্থীর মাঝে ৯ কোটি ৮৫ লাখ ৫ হাজার ৪৮০টি পাঠ্যপুস্তক এবং প্রাক-প্রাথমিক শ্রেণির ৩২ লাখ ৭১ হাজার ৫৭৮ জন শিক্ষার্থীর মাঝে ৩৩ লাখ ৩৭ হাজার ৬৩৮টি আমার বই ও ৩৩ লাখ ৩৭ হাজার ৬৩৮টি অনুশীলন খাতা বিতরণ করা হচ্ছে।

এছাড়া ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর প্রাক-প্রাথমিক শ্রেণির শিক্ষার্থীদের মাঝে ২৮ হাজার ৭৩৫টি আমার বই ও ২৮ হাজার ৭৩৫টি অনুশীলন খাতা এবং ১ম শ্রেণির ৭৪ হাজার ৮৪৭টি, ২য় শ্রেণির ৭৩ হাজার ৬৩৫টি, ৩য় শ্রেণির ২৪ হাজার ১৫১টি পাঠ্যপুস্তক বিতরণ করা হচ্ছে। আপদকালীন জরুরি প্রয়োজনে উপজেলা-থানা পর্যায়ে বাফার স্টকে দুই শতাংশ বই বরাদ্দ রাখা আছে।

মাধ্যমিক স্তরে ও মাদরাসার দাখিল পর্যায়ের শিক্ষার্থীদের জন্য ছাপানো হয়েছে ২৪ কোটি ৭৭ লাখ ৪২ হাজার ১৭৯টি বই। ইবতেদায়ি (মাদরাসার প্রাথমিক) স্তরের জন্য ছাপানো হয়েছে ২ কোটি ৩২ লাখ ৪৩ হাজার ৩৫টি বই। এসএসসি ভোকেশনালের জন্য ১৬ লাখ ৩ হাজার ৪১১টি বই। এইচএসসি বিএম ভোকেশনালের জন্য ২৭ লাখ ৬ হাজার ২৮টি বই এবং দাখিল ভোকেশনালের জন্য ছাপানো হয়েছে এক লাখ ৬৭ হাজার ৯৬৫টি বই।

উল্লেখ্য ২০১০ সাল থেকে বর্তমান সরকার বছরের প্রথম দিন বর্ণিল উৎসবের মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের হাতে বিনামূল্যে বই বিতরণ করে আসছে।