জাতীয় রাজনীতি

‘নির্বাচন থেকে সরে যাওয়ার পথ খুঁজছে বিএনপি’

Advertisements

সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন থেকে বিএনপি সরে যাওয়ার নানামুখী পথ খুঁজছে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

শনিবার রাজধানীর মহাখালী ব্র্যাকে সেন্টার অডিটোরিয়ামে ব্র্যাক ড্রাইভিং স্কুল থেকে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত মহিলা চালকদের সনদ বিতরণ অনুষ্ঠানে এ মন্তব্য করেন তিনি।

ওবায়দুল কাদের বলেন, নির্বাচনে বিএনপিকে হারানোর কোনো চক্রান্ত আওয়ামী লীগের নেই। বরং অযথা অজুহাত দিয়ে নির্বাচন থেকে সড়ে যাওয়ার জন্য নানামুখী পথ খুঁজছে বিএনপি। হেরে যাওয়ার আশঙ্কায় তারা এসব কথা বলছেন।

বিএনপি নেতারা বলছেন নির্বাচনে সরকারের পক্ষ থেকে সহযোগিতা করা হচ্ছে- এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, কোথায় কোথায় সরকারি দল নির্বাচনে আচরণবিধি লঙ্ঘন করছে, সেটা তাদের (বিএনপি) দেখাতে বলেন। দেশের জনগণ জানুক, সবাই জানুক। মনগড়া বা অন্ধকারে ঢিল ছোড়ার মত কথা বললে তো হবে না। আওয়ামী লীগ সরকারের এমপি-মন্ত্রীরা কোথাও কোনো নির্বাচনে অংশ নেয়নি। দলের জেনারেল সেক্রেটারি হয়েও কোনো নির্বাচনী প্রচারণায় অংশ নেইনি। তাহলে কীভাবে সরকার প্রভাবিত করলো প্রমাণ নিয়ে আসুন।

ইভিএম নিয়ে বিতর্কের বিষয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, সম্প্রতি বেশ কয়েকটি নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহার করা হয়েছে, কোথায় কারচুপি হয়েছে? কীভাবে হয়েছে তথ্য-প্রমাণসহ দেখান? তথ্য-প্রমাণ ছাড়া মনগড়া কথার মূল্য নেই। আমি বলতে চাই ইভিএমে যদি কারচুপি করার সুযোগ থাকে তাহলে চট্টগ্রাম উপ নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহার করার পরেও ভোটার উপস্থিতি এতো কম কেন? সেখানে কারচুপি থাকলে তো ভোটার উপস্থিতি অনেক বেড়ে যেত। সেখানে মাত্র ২৫ শতাংশ ভোট পড়ছে। সুতরাং এখানে কারচুপি করার কোনো সুযোগ নেই।

সভা শেষে ১১জন নারী ড্রাইভারদের মধ্যে সনদ বিতরণ করা হয়। তাদের প্রায় ৭ মাস প্রশিক্ষণ দেয়া হয়েছে। সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেন, যত বেশি নারী ড্রাইভার থাকবে তত  দুর্ঘটনা কমানো সম্ভব হবে।