Advertisements

বাংলাদেশে একটি পোশাক কারখানায় সকল কর্মকর্তা, কর্মচারীদের জন্য অফিস চলাকালীন প্রতিদিন মসজিদে গিয়ে যোহর, আসর ও মাগরিবের নামাজ পড়া বাধ্যতামূলক করার নোটিশ জারির পর তা বাতিল করা হয়েছে।

মাল্টিফ্যাবস লিমিটেড নামের ফ্যাক্টরির অপারেশন্স বিষয়ক পরিচালক মেসবাহ ফারুকী জানিয়েছেন, এটা তাদের একটা ভুল হয়েছিল। “এখন কোন বিষয়ে কোন বাধ্যবাধকতা নেই” বলে তিনি জানান।

তিনি বলেন “বেতন কাটার বিষয়টা তাদের কোম্পানির মধ্যে ভুল বোঝাবুঝির কারণে নোটিশে ভুলক্রমে উল্লেখ করা হয়েছিল। এখন আগের নোটিশ বাতিল করা হয়েছে”।

ঢাকার কাছে গাজীপুরে অবস্থিত মাল্টিফ্যাবস লিমিটেড নামের এই ফ্যাক্টরিতে এই মাসের ৯ তারিখে জারি করা একটি নোটিশে লেখা ছিল, এই তিন ওয়াক্ত নামাজ পড়তে যাওয়ার সময় পাঞ্চ মেশিনে পাঞ্চ করতে হবে।তাতে আরও লেখা ছিল, “যদি কোন স্টাফ মাসে সাত ওয়াক্ত পাঞ্চ করে নামাজ না পড়েন তবে সেক্ষেত্রে উক্ত ব্যক্তির বেতন হতে একদিনের সমপরিমাণ হাজিরা কর্তন করা হইবে।”

গতকাল ১৭ তারিখে জারি করা এই নোটিশে বলা হয়েছে “নামাজের উৎসাহ প্রদানের জন্য করা হয়েছিল। প্রকৃতপক্ষে বেতন কর্তনের কোন উদ্দেশ্য ছিল না। ভুলবশত বেতন কর্তনের বিষয়টি উল্লেখ থাকায় আমরা আন্তরিক ভাবে দু:খিত”।

আরো বলা হয়েছে “এই নোটিশটি জারি পূর্বক পূর্ববতী নোটিশটি বাতিল বলিয়া গণ্য হইল”।

By Abraham

Translate »