Advertisements

তীরে এসে তরী ডুবলো সালমা-জাহানারাদের। নারী টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে নিজেদের প্রথম ম্যাচে আজ বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ ছিল শক্তিশালী ভারত।

ভারত নিজেদের প্রথম ম্যাচে স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়াকে হারিয়ে শুরু করে বিশ্বকাপ যাত্রা। আজ বাংলাদেশের বিপক্ষে জয় পেলেও খানিক বেগ পেতে হয়েছে হারমান প্রিতির দলকে।

পার্থের ওয়াকা গ্রাউন্ডে টস জিতে বাংলাদেশ সিদ্ধান্ত নেয় আগে বোলিং করার। পরিকল্পনা অনুযায়ী শুরু থেকেই ভারতকে চেপে ধরে বাংলাদেশ।

ম্যাচের দ্বিতীয় ওভারে ওপেনার তানিয়া ভাটিয়াকে ২ রানে ফেরান সালমা খাতুন। দ্বিতীয় জুটিটা বেশ লম্বা হয়। জামিমাহ রদ্রিগেজ ও শাফালি ভার্মার জুটি থেকে আসে ৩৭ রান।
ভয়ঙ্কর হয়ে ওঠা শাফালিকে ৩৯ (১৭) রানে ফেরান পান্না ঘোষ। রদ্রিগেজ থামেন ৩৪ রান করে রান আউটের শিকার হয়ে।

শেষ দিকে ভেদা কৃষ্ণমূর্তির অপরাজিত ২০ রানে ভর করে ২০ ওভারে ৬ উইকেটে ১৪২ রান তুলে ভারত। বাংলাদেশের পক্ষে জাহানারা আলম, সালমা খাতুন ও পান্না ঘোষ নেন ২টি করে উইকেট।

জবাবে ব্যাট করতে নেমে প্রতিপক্ষের মতোই শুরু হয় বাংলাদেশের। ইনিংসের দ্বিতীয় ওভারের শেষ বলে সাজঘরে ফেরেন তিন রান করা শামিমা খাতুন। দ্বিতীয় উইকেট জুটিটাও লম্বা হয় ৩৯ রান পর্যন্ত।

৩০ রানে মুর্শিদা খাতুনের বিদায়ে ভাঙে জুটি। এরপর নিগার সুলতানাও ফেরেন ১০ রানে। পঞ্চম জুটিতে ২৮ রান যোগ করেন ফাহিমা খাতুন ও নিগার সুলতানা। মূলত বাংলাদেশকে ম্যাচে ফেরা নিগার। ম্যাচের ১৬ ওভার চার বলের মাথায় ৩৫ করা নিগারকে সাজঘরে ফিরিয়ে ম্যাচে ফিরে ভারত।

শেষদিকে জাহানারার ১০, ফাহিমা খাতুনের ১৭ রান শুধু হারের ব্যবধানটাই কমিয়েছে বাংলাদেশের। নির্দিষ্ট ওভারে বাংলাদেশ সংগ্রহ করে ৮ উইকেটে ১২৪ রান। ১৮ রানের জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে ভারত।

By Abraham

Translate »