Advertisements

রাজধানীর ডেমরায় ডিএনডি খালে গোসল করতে নিখোঁজের ১৭ ঘণ্টা পর মানসিক প্রতিবন্ধী শিশু আকাশির (১৩) মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। এর আগে বুধবার বেলা ২টার দিকে ডেমরার বামৈল এলাকায় চার বান্ধবী মিলে গোসল করতে নেমে শিশু আকাশি নিখোঁজ হয়।

আজ বৃহস্পতিবার (১৭ সেপ্টেম্বর) বৃহস্পতিবার সকাল ৭টার দিকে ডেমরা ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল তার মরদেহ উদ্ধার করে।

মৃত আকাশি শেরপুরের নলিতাবাড়ী থানার চাঁদগাঁও গ্রামের মো. আনোয়ার হোসেনের মেয়ে। তারা বর্তমানে বামৈল এলাকায় ভাড়া থাকত।

এ বিষয়ে ফায়ার সার্ভিসের (ঢাকা অঞ্চল-৫) উপসহকারী পরিচালক মো. হাফিজুর রহমান বলেন, বুধবার বেলা ২টার দিকে বামৈল এলাকায় খালে গোসল করতে গিয়ে নিখোঁজ হয় শিশু আকাশি। খবর পেয়ে ডেমরা ফায়ার সার্ভিসের উদ্ধার টিম মেয়েটিকে খোঁজা শুরু করলেও রাত ১২টা পর্যন্ত তার সন্ধান মেলেনি।

পরে আজ বৃহস্পতিবার ভোর সাড়ে ৫টার দিকে ডুবুরি দল ফের উদ্ধার অভিযান চালায়। নিখোঁজের ১৭ ঘণ্টা পর সকাল ৭টার দিকে শিশুটির মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

প্রত্যক্ষদর্শীদের বরাত দিয়ে ডেমরা ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন অফিসার মো. জাকারিয়া যুগান্তরকে বলেন, বুধবার দুপুরে বৃষ্টির সময় প্রতিবেশী তিন খেলার সাথী নিয়ে ডিএনডি খালে গোসল করতে আসে আকাশি। খালে সাঁতার কাটার একপর্যায়ে আকাশি দুর্বল হয়ে পড়লে তার খেলার সাথী জুঁইকে (৮) আঁকড়ে ধরে। এ সময় তারা দুজনেই পানিতে ডুবে গেলে স্থানীয় একটি ছেলে বিষয়টি খেয়াল করে জুঁইকে উদ্ধার করতে পারলেও আকাশিকে খুঁজে পায়নি সে।

জাকারিয়া আরও বলেন, এ ঘটনায় আকাশির খেলার সাথীরা বাড়িতে গিয়ে ভয়ে বিষয়টি গোপন রাখে। পরে বিকালে আকাশির মা-বাবা তাকে খুঁজে না পেয়ে জুঁইসহ তার বান্ধবীদের জিজ্ঞেস করলে জুঁই ভয়ে ভয়ে ডুবে যাওয়ার ঘটনা বলে।

Leave a Reply

Translate »