Advertisements

বিশ্বের গভীরতম সামুদ্রিক খাদ হিসেবে পরিচিত প্রশান্ত মহাসাগরের মারিয়ানা ট্রেঞ্চে অভিযান চালাচ্ছে চীন। সেখানে নেমেছে চীনের একটি ডুবোযান। ওই ডুবোযানে আছেন তিনজন গবেষক। চীন বলছে, গবেষণাসংক্রান্ত কাজেই এই অভিযান চালানো হচ্ছে।

বার্তা সংস্থা এএফপির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, শুক্রবার এ–সংক্রান্ত একটি ভিডিও চিত্র সম্প্রচার করা হয়। চীনের রাষ্ট্রীয় সম্প্রচারমাধ্যম সিসিটিভিতে বলা হয়, ডুবোযানটির নাম ‘ফেনদৌজা’ বা ইংরেজিতে ‘স্ট্রাইভার’। ওই যান চলতি মাসের প্রথম দিকে সমুদ্রপৃষ্ঠের ১০ হাজার ৯০৯ মিটার নিচে নেমে জাতীয় রেকর্ড করেছে। এ ক্ষেত্রে বিশ্ব রেকর্ডের অধিকারী হলেন একজন মার্কিন অভিযাত্রী। ২০১৯ সালে তিনি ১০ হাজার ৯২৭ মিটার নিচে পৌঁছে ছিলেন।

সিসিটিভির খবরে বলা হয়েছে, ডুবোযানটির গায়ে আছে সবুজ ও সাদা রঙের মিশেল। ভিডিও চিত্রে দেখা গেছে, ডুবোযানটি সমুদ্রের গভীরে নামছে। এর চারদিকে ছিল বিভিন্ন ধরনের ধ্বংসাবশেষ। একপর্যায়ে ডুবোযানটি সমুদ্রের তলদেশে অবতরণ করে।
অভিযানের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট চায়নিজ অ্যাকাডেমি অব সায়েন্সের গবেষক ঝু মিন বলেন, ‘আমাদের অভিযান প্রকৃতপক্ষে সফল হয়েছে, এমন দাবি করতে দুটির বেশি পরীক্ষামূলক অভিযানের প্রয়োজন রয়েছে।’

এই অভিযানে চীনের গবেষকেরা মারিয়ানা ট্রেঞ্চের জীববৈচিত্র্যের ওপর গবেষণা করবেন। তাঁরা সেখান থেকে জীববৈচিত্র্যের নানা নমুনা সংগ্রহ করবেন। এ ক্ষেত্রে রোবট ব্যবহার করা হবে। এ ছাড়া শব্দ তরঙ্গ ব্যবহার করে চারপাশের পরিস্থিতি পরখ করা হবে।

By Abraham

Leave a Reply

Translate »