জাতিসংঘের কার্যালয়ে হামলা

Advertisements

আফগানিস্তানের পশ্চিমাঞ্চলীয় হেরাত প্রদেশের রাজধানীতে জাতিসংঘের কার্যালয়ে ‘সরকারবিরোধী পক্ষ’ হামলা করেছে।

জাতিসংঘের সহায়তা মিশন ইউএনএএমএ জানিয়েছে, শুক্রবার এই হামলায় অন্তত একজন নিরাপত্তারক্ষী প্রাণ হারিয়েছেন।

 

কর্মকর্তারা বলেছেন, তালেবান যোদ্ধারা হেরাত শহরে প্রবেশের পর ইউএনএএমএ’র প্রাদেশিক সদরদপ্তরের কাছে আফগান নিরাপত্তা বাহিনীর সঙ্গে তুমুল সংঘর্ষ চলার কয়েক ঘণ্টা পর রকেট-চালিত গ্রেনেড ও গোলাগুলির মাধ্যমে এই হামলা হয়।

বার্তা সংস্থা রয়টার্সের প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে এই হামলার পরপরই এক বিবৃতিতে জাতিসংঘ বলেছে, তারা জরুরিভিত্তিতে হামলার বিষয়ে একটি পূর্ণাঙ্গ অবস্থা সম্পর্কে জানার চেষ্টা করতে শুরু করে এবং সংশ্লিষ্ট পক্ষের সাথে যোগাযোগ করেছে।

জাতিসংঘের ওই প্রধান কার্যালয়ে কে বা কারা হামলা করেছে তা তাত্ক্ষণিকভাবে নিশ্চিত হওয়া না গেলেও আফগান নিরাপত্তা কর্মকর্তারা জানান, শহরের সমস্ত কূটনৈতিক ভবন ও কার্যালয়কে উচ্চ সতর্কতা অবলম্বন করতে বলা হয়েছিল।

ইউএনএএমএ বলছে, স্পষ্টতই এটা জাতিসংঘের ওপর হামলা। আফগানিস্তানে জাতিসংঘের বিশেষ প্রতিনিধি দেবোরাহ লায়ন্স বলছেন, ‘জাতিসংঘের বিরুদ্ধে এমন হামলার ঘটনা শোচনীয় এবং আমরা কঠোর ভাষায় এই হামলার নিন্দা জানাচ্ছি।’

তবে ওই হামলায় জাতিসংঘের কোনো কর্মী আহত হয়নি বলে জানিয়েছে ইউএনএএমএ।

বিগত ২৪ ঘণ্টায় তালেবান যে দুটি প্রাদেশিক রাজধানী শহরে প্রবেশ করেছে তার একটি হেরাত। এর আগে তারা দক্ষিণাঞ্চলীয় হেলমান্দের রাজধানীতে প্রবেশ করেছিল এবং সেখানে সংঘর্ষ চলছে। শহরটির সাধারণ মানুষজন বাড়িঘর ছেড়ে পালাচ্ছেন।